ডোমেইন কিভাবে কিনবেন তার এ টু জেড গাইড

ডিজিটাল এই যুগে হরহামেশাই নতুন নতুন ব্লগ ও ওয়েবসাইট বানানোর প্রয়োজন হচ্ছে।

 

আর একটি ওয়েবসাইটের অপরিহার্য্য অংশ হল এর ডোমেইন।

 

হ্যা, একটি ডোমেইন ছাড়া কখনই একটি ওয়েবসাইট খোলা সম্ভব না।

 

তাই একটি সাইট ওপেনিং এর সময় সবথেকে আগে যে জিনিসটি মাথায় আসে সেটি হল তার ডোমেইন। তো আপনি কি জানেন যে একটি ডোমেইন কিভাবে কিনতে হয়?

 

কোন সমস্য নেই যদি আপনি তা না জেনে থাকেন কারন আমি এই পোস্টে আপনাকে ডোমেইন কেনার উপায় বিস্তারিতভাবে বলে দেব।

 

তাহলে চলুন জেনে নেই যে কিভাবে এই কাজটি করতে হয়!

 

কিভাবে ডোমেইন কিনবেন?

এখন আমি ধাপে ধাপে একটি ডোমেইন কেনার প্রক্রিয়া দেখাবো।

 

তবে প্রথমেই বলে নেই যে ডোমেইন কিন্তু আপনি ২ টি উপায়ে কিনতে পারেন আর তা হলঃ

১। শুধুমাত্র ডোমেইন কেনা

২। কোন হোস্টিং প্যাকের সাথে ডোমেইন কেনা

 

তো এ  ব্যাপারটি একটু ক্লিয়ার করে বলি। আসলে আপনি ডোমেইন কেন কিনছেন? একটি ওয়েবসাইট খোলার জন্য তাই তো!

 

তো একটি ওয়েবসাইট খুলতে একটি হোস্টিং প্যাক ও কেনার প্রয়োজন হয় আর তাই আপনি চাইলে আপনার ডোমেইনটি একটি হোস্টিং প্যাক কেনার সময়ই কিনতে পারেন, আবার শুধুমাত্র একটি ডোমেইন ও আলাদাভাবে কিনতে পারেন যদি এখনই সেটা হোস্টিং না করতে চান।

 

যাই হোক আমি উভয় পদ্ধতিই এই পোস্টে দেখাব।

 

জানুন! বিভিন্ন এক্সটেনশনের ডোমেইনের দাম

 

উপায় ১। শুধুমাত্র ডোমেইন কেনা

তাহলে প্রথমে আমি শুধুমাত্র ডোমেইন কেনার উপায়টি এখানে দেখাচ্ছি।

 

ধাপ ১। আপনার ডোমেইনটি পছন্দ করুন

আপনার ডোমেইনটি পছন্দ করুন। হ্যা, যেহেতু ডোমেইন হল একটি ইউনিক নেম, তাই আপনি শুধুমাত্র ওই ডোমেইনটিই কিনতে পারবেন যা আপনার আগে অন্য কেউ রেজিস্ট্রেশন করে ফেলেনি।

 

তাই প্রথমে আপনি আপনার সাইটের জন্য একটি সুন্দর নাম পছন্দ করুন।

 

ধাপ ২। একটি ডোমেইন রেজিস্ট্রার কম্পানির সাইটে ভিজিট করুন

আপনার ডোমেইন এর নামটি পছন্দ করা হয়ে গেলে এবার এখানে ক্লিক করে Namecheap এ ভিজিট করুন।

 

আমি এখানে Namecheap কে রেকমেন্ড করছি কারন তারা হল ওয়ার্ল্ড ক্লাস ডোমেইন রেজিস্ট্রার।

 

আপনি চাইলে GoDaddy থেকেও আপনার ডোমেইনটি কিনতে পারেন।

 

কিন্তু ভুলেও লোকাল কারো কাছ থেকে এই যেমন লোকাল কোন কম্পানি বা বড় ভাইকে দিয়ে আপনার ডোমেইনটি কেনাবেন না।

 

কারন আপনাকে আপনার নিজস্ব একাউন্টেই ডোমেইন কিনতে হবে, তাহলে আপনি সর্বোচ্চ নিরাপত্তা পাবেন।

 

এমন ঘটনা অহরহ ঘটছে যে লোকাল কারো কাছ থেকে ডোমেইন কিনলেন, কিন্তু পরের বছর আর রিনিউ করতে পারলেন না কারন আপনি আপনার একাউন্টে আপনার ডোমেইনটি কেনেননি।

 

তাই এই ব্যাপারটায় সচেতন হোন।

 

ধাপ ৩। আপনার ডোমেইনটি সার্চ করুন

Namecheap এ ভিজিট করলে আপনি একটি ওয়েব পেইজ পাবেন যেখানে নিচের মত একটি বক্স দেখতে পাচ্ছেনঃ

namecheap domain name search

এই বক্সে আপনার পছন্দের ডোমেইন নেমটি বসিয়ে দিন আর এরপর .com এক্সটেনশনটি ব্যবহার করুন কারন  .com হল সবথেকে জনপ্রিয় এক্সটেনশন।

 

এরপর এর পাশে থাকা সার্চ বাটনটিতে ক্লিক করুন।

আপনার ডোমেইনটি যদি এভেইলেবল থাকে তবে আপনি তার বা দিকে একটি টিক চিহ্ন ও ডানদিকে একটি শপিং কার্ট বাটন দেখতে পাবেন।

 

আমি gotopblogging.com দিয়ে টেস্ট করেছি এবং দেখতে পারছেন যে তার ডানদিকে ডোমেইনটির দামসহ একটি শপিং কার্ট দেখাচ্ছেঃ

domain is available

 

ধাপ ৪। আপনার ডোমেইনটি শপিং কার্ট এ যোগ করুন

এবার আপনি ওই শপিং কার্ট বাটনে ক্লিক করুন ও দেখবেন যে ডানদিকে থাকা  আপনার কার্টে তা যুক্ত হয়ে গিয়েছেঃ

updated namecheap cart

ধাপ ৫। View Cart বাটনে ক্লিক করুন

এবার নিচে দেখবেন যে View Cart নামে একটি বাটন আছে। এখানে ক্লিক করলে নিচের মত একটি লিস্ট দেখতে পাবেনঃ

domain purchase overview

ধাপ ৬। কিছু সেটিং বুঝে নিন

এখান থেকে আপনি আপনার ডোমেইনটি কত বছরের জন্য কিনতে চান তা সিলেক্ট করে নিতে পারবেন। 1 Year বাটনটিতে ক্লিক করে আপনার প্রয়োজনমত যে কয় বছর ইচ্ছা তা বাড়িয়ে নিন।

 

আর এর পাশে থাকা AUTO-RENEW অন করে দিন তাতে করে আপনার ডোমেইনটি প্রতি বছর অটোমেটিকলি রিনিউ হয়ে যাবে।

 

ধাপ ৭। ডোমেইনের বিল পরিশোধ করুন

এবার আপনার ডোমেইনের সমস্ত ইনফরমেশন আবারও ভালমত চেক করে নিন যে কোথাও কোন ভুল আছে কিনা।

 

সবকিছু নিরভুল থাকলে আপনাকে এবার আপনার ডোমেইনটির বিল পরিশোধ করতে হবে।

 

এজন্য আপনাকে Confirm Order বাটনটিতে ক্লিক করতে হবেঃ

confirm the domain purchase

আপনার যদি Namecheap এ আগে থেকেই কোন একাউন্ট থেকে থাকে তবে তাতে লগইন করুন আর না থেকে থাকলে সাইনআপ বাটনে ক্লিক করে একটি একাউন্ট খুলুন।

 

এরপর আপনার কার্ডের ইনফরমেশন দিয়ে ডোমেইনটির বিল পরিশোধ করুন।

 

বিল পরিশোধের পর আপনি আপনার ইমেইলে কয়েকটি ইমেইল পাবেন যেখানে একটি ডোমেইন ভেরিফিকেশন ইমেইল আছে। ওই ইমেইলে প্রবেশ করে আপনার ডোমেইনটি ভেরিফাই করে নিন।

 

ব্যস! আপনার ডোমেইনটি কেনা হয়ে গিয়েছে।

 

এবার আমি দেখাবো কিভাবে একটি হোস্টিং প্যাক এর সাথে আপনি আপনার ডোমেইনটি কিনতে পারেন।

 

জেনে রাখা ভাল! একটি ওয়েবসাইট তৈরির খরচ কত?

 

উপায় ২। কোন হোস্টিং প্যাকের সাথে ডোমেইন কেনা

এই উপায়টি সম্পর্কে আমি এখানে ডিটেইলস আলোচনয়া করছি না কারন আমি এ সম্পর্কে ইতোমধ্যে নিচের গাইডে আলোচনা করেছিঃ কিভাবে ব্লগ খুলতে হয় তার কমপ্লিট গাইড

 

তো ওপরের লিঙ্কে ক্লিক করে দেখুন যে কিভাবে একটি ব্লগ খুলতে হয়। সেখানে আপনি নেমচিপের একটি হোস্টিং প্যাকের সাথে একটি ডোমেইন কেনার প্রক্রিয়া বিস্তারিতভাবে দেখতে পাবেন।

 

তাহলে জেনে গেলেন তো কিভাবে একটি ডোমেইন কিনতে হয়?

 

এ গাইডটি আপনার ব্রাউজারে বুকমার্ক করে রাখুন ও যখন আপনার কোন ডোমেইন কেনার প্রয়োজন হবে, তখন গাইডটি অনুসরণ করে তা কিনে ফেলুন।

 

ভালো থাকবেন ও পরের গাইডে আবারো দেখা হবে।

ভাল লাগলে শেয়ার করুন আর কোন প্রশ্ন বা মতামত থাকলে তা কমেন্টে জানান

11 thoughts on “ডোমেইন কিভাবে কিনবেন তার এ টু জেড গাইড”

  1. কিভাবে ডোমিন ক্রয় করতে হবে ? এই টিউটোরিয়ালটির মাধ্যমে বাংলা ভাষাভাষী লোকেরা খুব সহজেই দারুন একটি তথ্যবহূল সমাধান খুঁজে পাবে। এই ধরণের আরোও টিউটোরিয়াল ও বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিরসহ প্রতিদিনের সরকারী ও বেসরকারী চাকুরির নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি দেখতে ভিজিট করুন। “NewsElab”

  2. আপনার লেখার ভিতরে
    কোন হিডেন চার্জ নাই
    খুব ভাল লাগল।
    তবে আমি ডোমেইনের চার্জ পরিশোধের জন্য কোন কার্ড
    ব্যাবহার করব?যা বাংলাদেশের ব্যাংক থেকে পাওয়া যাবে।
    ধন্যবাদ স্যার

  3. ইস্টার্ন ব্যাংকের একোয়া মাস্টারকার্ড ব্যবহার করতে পারেন
    ধন্যবাদ

  4. ভাই কার্ডই লাগব নাকি শুধু একটা একাউন্ড আর কিছু ডলার তুলেই কিনতে পারব না৷ কার্ডে তো আবার আলাদা টাকা দিতে হয় তাই না৷

    আমি চাচ্ছি ইস্টার্ন ব্যাংকের একোয়া একটা একাউন্ড করব আর না হয় কিছু ডলার বন্ধুদের থেকে সংগ্রহ করব নইলে টাকা থেকে ডলার কনবার্ট করব৷

    এখন ভাই তুমি কি বলো? উত্তর দেও তাড়াতাড়ি৷

    • সোহেল ভাই, অনলাইনে কোন পেমেন্ট করতে অবশ্যই আপনার একটা ইন্টারন্যাশনাল কোন কার্ড ব্যবহার করতে হবে। আপনি যেটা করতে পারেন সেটি হল অন্য কারো কার্ড পেমেন্টের সময় ব্যবহার করে তাকে ডলারের সমপরিমান টাকা দিয়ে দেওয়া। এই যেমন পেওনিয়ার বা একোয়া মাস্টারকারড আছে এমন কারো সাথে যোগাযোগ করুন।

  5. ভাই এলাকার মানুষ সব ভয় পায় তাদের কার্ডের সাহায্যে পেমেন্ট দিতে, এছাড়া আর কি কি উপায় আছে বলো৷

  6. ভাই,আপনার লিখা পড়ে ভাল লাগল। আমার একটি ডোমেইন নেম সিলেক্ট আছে।কিন্তু সেটা চেক করে দেখি অন্য এক জন রেজিস্ট্রেশন করে বসে আছে। সেল করবে। আমি সেটা কিনতে চাই।কিন্তু কেনার প্রকৃয়া টা কেমন , কিভাবে রিক্স ফ্রি কেনা যায় জানাবেন প্লিজ। আপনার উত্তরের অপেক্ষায় আছি। ধন্যবাদ।

  7. ভাই মাস্টার কার্ড ছাড়া বিকাশে ডোমেইনের টাকা পেমেন্ট করার কোনো উপায় আছে ?????
    প্লিজ ভাই একটু দ্রুত জানাবেন…………………….

  8. ভাই আপনি আমাকেএকটি ডোমেইন কিনতে সহায়তা করবেন
    01811241345

Leave a Comment